poetry

শহরের জঞ্জালে প্রজাপতিরা উড়ে যায়, নাগরিক বিষময় পথ অবাক বিস্ময়; একটু থেমে থেমে নিজের অবয়ব দেখে নাকি দেখে না, চোখ বুঝে ভাবে পৃথিবীর যাবতীয় মধ্যাকর্ষণ শহরের এসে একটু অন্য সূত্রে […]

প্রথম বৃষ্টির মতো, চিরচেনা এবং অচেনা তবুও মেঘের কথা ভাবি, ঝরের গুঞ্জন আমাদের পথের অনেক অজানা বাঁকে পায়ে হেঁটে অথবা গড়িয়ে যাই সামনের দিকে এ জীবন শেষে, পথের শেষে, সময়ের […]

“ঘুমোও তুমি, ঘুমোও তুমি” বলছে না কেউ হঠাৎ করে? কেউ আমাকে ডাকছে না কেন, আসতে বলে অনেক ভোরে? এসব কথা ভাবতে ভাবতে সূর্যিমামার উদয় হয় এক্কেবারে মরেই যাব, এই ভাবনারই […]

আমার অক্সিজেন

কী অসম্ভবের দশা, নিশ্বাসের অক্সিজেন কঠিন লোহাকেও মরিচা ফেলে দেয়; যারা নিশ্বাস নিয়ে স্বপ্ন দেখি বা দেখাই লৌহ মনকে মরিচা থেকে বাঁচাই, কোথায় জানি বোবা কান্না থেকে যায়। হে আমার […]

কন্ঠের কাছে বিষের মতো ছায়া সঙ্কুচিত একটা ভ্রমর দিকভ্রান্ত হঠাত পৃথিবীর বলয়ে চৌম্বক রেখা অচেনা 29 জেনেও আমার জিপিএস চালু করি না।

ক্ষমা চাই আকাশের কাছে ক্ষমা চাই কবিতার কাছে ক্ষমা চাই একটা হৃদয়ের কাছে ক্ষমা চাই নিকট দূরত্বের একজোড়া চোখের কাছে